চাঁপাইনবাবগঞ্জের তিন উপজেলায় বজ্রপাতের আঘাতে তিন শিশুসহ পাঁচজনের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার (২৪ মে) বেলা সাড়ে তিনটার দিকে প্রায় একই সময়ে বজ্রপাতে সদর উপজেলায় দুজন, গোমস্তাপুর উপজেলায় দুজন ও ভোলাহাট উপজেলায় একজনের মৃত্যু হয়।

সদর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা প্রকৌশলী মৌদুদ আলম খাঁ জানান, সোমবার বিকেলে রবিউল ইসলাম ও তার বাবা এমানুল ইসলাম অনুপনগর ইউনিয়নের মাঠে ধান কাটছিলেন। এ সময় বজ্রপাতে রবিউল ইসলাম মারা যান। তাঁদের বাড়ি দেবীনগর ইউনিয়নের নামোহড়মা গ্রামে।

একইসময়ে সুন্দরপুর ইউনিয়নে বাগানে লিচু কুড়াতে গিয়ে মারা যান কালীনগর সাবানিয়াপাড়া গ্রামের আশরাফুল হকের ছেলে আলামিন (১৩)।

এদিকে গোমস্তাপুরে বাড়ির পাশে আমবাগানে আম কুড়ানোর সময় বজ্রপাতে মারা যান রহনপুর পৌরসভার হুজরাপুর মহল্লার বিপ্লব আলীর মেয়ে লিলি খাতুন খুশি (১২) ও গোমস্তাপুর ইউনিয়নের নশীবন্দীনগর গ্রামের নাজমুল হাসানের মেয়ে সাদিয়া খাতুন (১০)।

এ ছাড়া ভোলাহাট উপজেলার জামবাড়িয়া ইউপির কৃষ্ণপুর হাড়িয়াবাড়ি গ্রামে খেতে ধান কাটতে গিয়ে বজ্রপাতে একজন মারা গেছেন। তিনি ওই গ্রামের আকালু হাজির ছেলে আজিজুল হক (৫৫)।