বাংলাদেশি মডেল-অভিনেত্রী রাফিয়াথ রশীদ মিথিলা। কোনো না কোনো বিষয়ে বরাবরই আলোচনায় থাকেন তিনি। তাকে নিয়ে ভক্তদেরও আগ্রহের শেষ নেই। তবে এবার দেশে যখন ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন বিরোধী আন্দোলন চরমে তখন নিজের তিক্ত অভিজ্ঞতা নিয়ে মুখ খুললেন অভিনেত্রী। জানালেন ধর্ষণের হুমকি পাওয়ার কথা।

সংঙ্গীতশিল্পী তাহসানের সাথে ডিভোর্স হওয়ার পর গত বছরের শেষের দিকে কলকাতার সৃজিত মুখার্জিকে বিয়ে করেন মিথিলা। তার দ্বিতীয় বিয়ে নিয়ে সমালোচনাও কম ছিলো না। তবে এবার ভিন্নভাবে খবরের শিরোনাম হলেন।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে মিথিলা বলেন, আমাকে একদল মানুষ নিয়মিত ধর্ষণ করার হুমকি দেয়।

তিনি বলেন, সোশ্যাল মিডিয়াতে এক দল মানুষ আছে যারা আমাকে প্রতিনিয়ত বলে আমার আত্মহত্যা করা উচিত। আমি নাকি এতটাই খারাপ। শুধু তাই নয়, তারা আমাকে ধর্ষণের হুমকিও দেয়।

সেই সব মানুষদের উদ্দ্যেশে মিথিলা বলেন, যারা ওইসব কথা বা হুমকি দেয় আমার মনে হয় তারা মানসিকভাবে অসুস্থ, না হয় তারা নিজেদের জায়গা থেকে প্রচুর অসুখী অথবা তাদের শিক্ষার অভাব।

প্রসঙ্গত, গত ৬ ডিসেম্বর দক্ষিণ কলকাতায় সৃজিত-মিথিলার বিয়ের অনুষ্ঠান হয়। তবে সেই অনুষ্ঠান ছিল সাদামাঠা। কোনও আড়ম্বর ছিল না। ঘরোয়াভাবে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মিথিলার বাবা-মা, ভাইবোন এবং সৃজিতের পরিবারের মানুষজন। আরও ছিলেন এই দুই তারকার ঘনিষ্ঠ কয়েকজন বন্ধু, তাঁর সবাই চলচ্চিত্রের খুব পরিচিত মুখ।

জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী তাহসানের সঙ্গে মিথিলার বিয়ে হয় ২০০৬ সালের ৩ আগস্ট। তাঁদের বিবাহবিচ্ছেদ হয় ২০১৭ সালের জুলাই মাসে। তাঁদের একমাত্র সন্তান আইরা এখন মিথিলার কাছেই আছে। অন্যদিকে সৃজিতের ‘রিলেশনশিপ স্ট্যাটাস’ ছিল সিঙ্গেল।

মিথিলা এখন ব্র্যাকে কর্মরত আছেন। তিনি ব্র্যাকের আরলি চাইল্ড ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রাম বিভাগের প্রধান। অপরদিকে তার দ্বিতীয় স্বামী সৃজিত মুখার্জি ভারতের এ সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় চলচ্চিত্র নির্মাতা।